ভাগ্যক্রমে আমরা সিরিজ জিতেছি : তামিম

তিন ম্যাচের সিরিজটি একটি ম্যাচ হাতে রেখেই নিজেদের করে নিয়েছে তামিম ইকবালরা। শুধু তাই নয়, এই প্রথম শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কোনো সিরিজ জিতলো বাংলাদেশ।

তবে, যেভাবে বাংলাদেশ সিরিজ জিতেছে, সেটা মোটেও পছন্দ হচ্ছে না অধিনায়ক তামিম ইকবালের। বিশেষ করে দুই ম্যাচেই টপ অর্ডার পুরোপুরি ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে। আজ দ্বিতীয় ম্যাচে তো বলতে গেলে মুশফিকুর রহীম একাই ব্যাট করেছেন। মুশফিক যদি না দাঁড়াতে পারতেন, তাহলে কী অবস্থা হতো?

এ কারণেই ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক তামিম, সিরিজ জয়তে আখ্যায়িত করলেন, ‘ভাগ্যক্রমে জয়’ হিসেবে। তার মতে এখনও বাংলাদেশ পারফেক্ট খেলা খেলেনি।

তিনি বলেনম ‘ভাগ্যক্রমে আমরা সিরিজ জিতে গিয়েছি। সিরিজ জিতেছি বলে খুবই খুশি। তবে আমি মনে করি এই সিরিজে আমরা এখনো পারফেক্ট খেলা খেলিনি। আশাকরি তৃতীয় ওয়ানডেতে আমরা পারফেক্ট খেলাটা খেলতে পারব।’

ব্যাটিংয়ের দৈন্যদশা সম্পর্কে আলোকপাত করে তামিম বলেন, ‘যদি আপনি আজকের ম্যাচের দিকে তাকান, আমরা শুরুতে বেশ কিছু উইকেট হারিয়ে বসেছিলাম। এক পর্যায়ে ২০০ রানও অনেক কঠিন মনে হচ্ছিল। এরপর মুশফিক দুর্দান্ত খেলেছে, মাহমুদউল্লাহ কিছু অবদান রেখেছে। শেষমেশ আমরা কোনরকম এক স্কোর করেছি আমি বলবো। প্রথম ম্যাচের চেয়ে আজকের উইকেট ভালো ছিল।’’

বোলাররা অসাধারণ বোলিং করেছেন বলে জানালেন তামিম। যে কারণে তাদের প্রশংসা করতেও ভোলেননি অধিনায়ক। তিনি বলেন, ‘বোলাররা ছিল অসাধারণ। যেভাবে অভিষেকে শরিফুল ইসলাম বল করেছে, কনকাসন ইস্যুর পর তাসকিন হুট করে এসেই যেভাবে বল করেছে তা দারুণ কিছু। মিরাজ আরও একবার ব্রিলিয়ান্ট ছিল, সাকিবও ভালো করেছে। বোলিং ডিপার্টমেন্ট নিয়ে আমি খুশি, ফিল্ডিং ডিপার্টমেন্টে আমরা ভালো ফিল্ডিং করা শুরু করেছি।’

ফিল্ডিংয়ের কিছুটা উন্নতি ধরা পড়েছে তামিমেরে চোখে। তিনি বলেন, ‘সিরিজের আগে আমি বলেছিলাম আমাদের ফিল্ডিংয়ে উন্নতি করতে হবে। আমরা ভালো কিছু ক্যাচ নিয়েছি। তবে যেসব ক্যাচ আমরা নিতে পারিনি সেসব ক্যাচ ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেয়। হয়তো আজ এটার দরকার পড়েনি, তবে কাল এটার দরকার পড়তেও পারে। আমরা যদি সেসব ক্যাচও নিতে পারি তাহলে আমি খুবই খুশি অধিনায়ক হব।’